বঙ্গবন্ধুর খুনি রাশেদকে শিগগিরই ফিরিয়ে আনা সম্ভব হবে: আইনমন্ত্রী


আইনমন্ত্রী আনিসুল হক

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। ফাইল ছবি

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বর্তমানে বাংলাদেশে অত্যন্ত বন্ধুত্বসুলভ সম্পর্ক রয়েছে। আমাদের এই সম্পর্কের উপর আস্থা রেখে বলতে পারি, যুক্তরাষ্ট্রে পালিয়ে থাকা বঙ্গবন্ধুর খুনি রাশেদ চৌধুরীকে শিগগিরই ফিরিয়ে আনা সম্ভব হবে।

শনিবার সন্ধ্যায় ঢাকায় বাংলাদেশ জাতীয় জাদুঘর মিলনায়তনে বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশের সংবিধান শীর্ষক এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন মন্ত্রী।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর খুনিদের ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে আমি আগেও বলেছি আজও বলছি, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আমাদের অত্যন্ত বন্ধুত্বসুলভ সম্পর্ক রয়েছে। আপনারা দেখেছেন ২০০৭ সালে তারা বঙ্গবন্ধুর এক খুনিকে ফিরিয়ে দিয়েছে। এখনো সেখানে একজন চিহ্নিত খুনি রয়েছে।

তিনি বলেন, ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত তৎকালীন সরকার এই খুনিকে ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে কোন পদক্ষেপ না নেয়ার সুযোগে সে অনেক আইনি লড়াইয়ের মধ্যে ছিল। তারপরও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র তাকে ফিরিয়ে দেয়ার বিষয়ে আমাদের সঙ্গে আলোচনারত রয়েছে এবং আইনি প্রক্রিয়ার মাধ্যমে তারা তাকে কিভাবে ফিরিয়ে দিতে পারে সে বিষয়ে আলোচনা চলছে।

আনিসুল হক বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করার পর ২১ বছর সে অপরাধের কোন বিচার হয়নি। কিন্তু এই সংবিধান এবং বঙ্গবন্ধু পরিবারের সুযোগ্য কন্যা ফিরে আসার পরে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ার স্বপ্ন এবং ধারণা প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। বাংলাদেশের জনগণ যেহেতু নয় মাসে রক্ত দিয়ে এই বাংলাদেশকে স্বাধীন করেছে।

তিনি বলেন, বিভিন্ন অপশক্তি চেষ্টা করবে কিন্তু কোন অপশক্তি এই বাংলাদেশের উন্নতি রোধ করতে পারবেনা। তাই আজকের এই দিনে আমরা শপথ নেই বঙ্গবন্ধু যে সোনার বাংলার স্বপ্ন দেখেছিলেন শেখ হাসিনার সঙ্গে থেকে আমরা সেই সোনার বাংলা গড়ে তুলবো।

সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা ও জাতীয় জাদুঘরের মহাপরিচালক মো আব্দুল মান্নান ইলিয়াস বক্তৃতা করেন।

মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. মশিউর রহমান।





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *