ভ্রমন পিপাসুদের জন্য সেরা ১০টি গেজেট ভ্রমণ করার পরিকল্পনা থাকলে এই গেজেট গুলি ছাড়া বের হবার চিন্তাও করবেন না | Techtunes


কোলাহল থেকে দূরে, সব ব্যস্ততাকে ছুটি দিয়ে, সকল যন্ত্রণাকে ভুলে গিয়ে প্রকৃতির সান্নিধ্যে একটু মুক্ত বাতসে নিশ্বাস নিতে আমাদের সবারই মন চায়। আর তাই বাক্স-পেটরা গুছিয়ে বেরিয়ে পরি ঘুরতে। ট্রেনে করে লম্বা একটা জার্নি একদম স্বপ্নের মত কোথাও চলে যাওয়া নির্জন পাহাড়ের চুড়ায় তাঁবু খাটিয়ে নদী থেকে সদ্য ধরা মাছ বারবিকিউ করার সময় জংলি এক কাপ চা খাওয়া আমাদের এমন সব স্বপ্নগুলো একতু হলেও পূরণ করতে আমরা বেরিয়ে পরি ঘুরতে।

http://www.techtunes.com.bd/

ভ্রমণ সবসময়ই আমাদের প্রিয়। নাগরিক জীবনের যন্ত্রনা থেকে একটু দূরে গিয়ে মুক্ত বাতাসে নিশ্বাস নিতে ভ্রমণই একমাত্র পথ। কিন্তু বিড়ম্বনা থেকে বাঁচার ভ্রমণেও পড়তে হয় নানা বিড়ম্বনায়। আর তাই আপনার ভ্রমণকে বিড়ম্বনা মুক্ত করতে প্রযুক্তি করে চলেছে একের প এক আবিষ্কার। আজকের টিউন ভ্রমণের সময় উপকারি এবং দরকারি ১০টি এমন প্রযুক্তি পণ্য নিয়ে যেগুলো সাথে থাকলে আপনার ভ্রমণের বিড়ম্বনা কমে যাবে অনেককখানি নিশ্চিন্তে পারবেন ঘুরে আসতে। তো চলুন শুরু করা যাক।

১) Personal Alarm(পার্সোনাল এলার্ম)

পোর্টেবল এলার্ম সবসময়ই কার্যকরী। বলা তো যায় না কখন কোন বিপদ এসে হাজির হয়! আর তাই নিরাপত্তার জন্য সাথে রাখতে পারেন এ ধরনের এলার্ম। এ ধরনের পার্সোনাল এলার্মে সাধারণত ১৩০ডেসিবেল এর এলার্ম লাগানো আছে। যার শব্দ অনেক দূর পর্যন্ত শোনা যায়। ফলে কোন বিপদে কাজে আসতে পারে সাইরেনের মত।

http://www.techtunes.com.bd/

ছোট এবং সহজে বহনযোগ্য এই এলার্মটি পকেটে কিংবা ব্যাকপ্যাকের ছোট কোন পকেটে কিংবা পার্সে রেখে দিতে পারবেন। এলার্ম বাজানোর জন্য ছোত একটি পিন টান দিলেই এলার্ম বেজে উঠবে। এলার্ম ছাড়াও এতে আছে দুইটা ফ্ল্যাশলাইট এবং একটি লালা লেজার যার কারণে দূর থেকে মানুষ আপনাকে দেখতে পাবে।

২) Portable Door Lock(পোর্টেবল ডোর লক)

বেড়াতে গিয়ে হোটেল, মোটেল কিংবা রেস্টহাউজেই থাকে বেশিরভাগ মানুষ। আর সেখানে বরাদ্দকৃত রুমের চাবি আপনি ছাড়াও আছে হোটেল কতৃপক্ষের কাছে, এর বাইরে কারো কাছে চাবি আছে কিনা আপনি কি জানেন? নকল চাবি দিয়ে কিংবা তালা ভেঙে কারো প্রবেশ যদি আটকাতে চান অথবা আপনার অনুপস্থিতিতে হোটেল কতৃপক্ষকেও যদি আপনার রুমে প্রবেশ থেকে বিরত রাখতে চান তাহলে কাজে দিবে এই গেজেটটি। এ ধরনের পোর্টেবল ডোর লক কিনতে পাবেন হাতের কাছেই।

http://www.techtunes.com.bd/

এই ধরনের লক সম্পূর্ণ নিরাপদ। এ ধরনের লক ভেতর এবং বাইরে থেকে দরজা খুলতে দেয় না। ফলে সুরক্ষিত থাকে যা আপনি সুরক্ষিত রাখতে চাচ্ছেন।

৩) Bluetooth Tracker(ব্লুটুথ ট্রাক্যার)

ছোট-ছোট জিনিসগুলি আমরা হারিয়ে ফেলি অনেক সময়ই। নিজেই কোথাও রেখে পরে আর খুঁজে পাই না। একই ঘটনা ঘটে আমাদের মোবাইলের ক্ষেত্রেও। ভ্রমণের সময় এ ধরনের ভুলগুলো যন্ত্রনা দেয় অনেক। অনেক সময় এর ফলে আমাদের ট্রেন, বাস অথবা প্লেনও মিস হয়ে যায়। এ বিড়ম্বনা থেকে বাঁচতে ব্যবহার করতে পারেন ব্লুটুথ ট্র্যাকার। অ্যান্ড্রয়েড ফোনের সাথে সহজে ব্যবহারযোগ্য এই গেজেটটি নিঃসন্দেহে আপনার কাজে আসবে।

http://www.techtunes.com.bd/

ব্লুটুথে কাজ করা এই ডিভাইসগুলির সাধারণত রেঞ্জ হয়ে থাকে ২০০ মিটার। এই ধরনের গেজেট ব্যবহার করে মুক্তি পেতে পারেন কিছু হারিয়ে ফেলার যন্ত্রনা থেকেও। চালু অবস্থায় কোন ব্লুটুথে সংযুক্ত ডিভাইস এর থেকে ২০০ মিটার দূরে সরে গেলে এলার্ম বাজিয়ে জানিয়ে দেবে আপনাকে। চাবি, পাসপোর্ট, মানি ব্যাগ এ ধরনের জিনিসগুলি নিরাপদ রাখতে ব্যবহার করতে পারেন ব্লুটুথ ট্র্যাকার।

৪) Body Wallet Waist(বডি ওয়ালেট ওয়েস্ট)

হ্বজযাত্রীদের এই ধরনের কোমর ওয়ালেট পড়তে দেখেছি আমরা সবাই। টাকা, পাসপোর্ট বা টিকেট নিরাপদে রাখতে ব্যবহার করা যাবে এই ধরনের ওয়ালেটগুলি। বেশিরভাব কোমর ওয়ালেটগুলি ওয়াটার প্রুফ হওয়ায় থাকতে পারেন নিশ্চিন্ত।

http://www.techtunes.com.bd/

বডি ডিজাইন, কোমরের শেপের সাথে মানিয়ে নেয়া, বহনের সহজযোগ্যতার কারণে এই ওয়ালেটগুলিও পেয়ে যাবেন হাতের কাছেই।

৫) USB Pendrive(ইউএসবি পেনড্রাইভ)

পেনড্রাইভ কি এটা ব্যাখ্যা করার দরকার পরে না। পেনড্রাইভ নিয়ে ভ্রমণে যাবেন কারণ এর প্রয়োজন হবে। ভ্রমণে গিয়ে ছবি তুলি না এমন ক’জন আছি? আমরা সবাই বেড়াতে গিয়ে ছবি তুলি। মোবাইলে, ক্যামেরায় ধরে রাখি আনন্দের স্মৃতিগুলি। কিন্তু দেখা যায় অনেকেই স্টোরেজ সমস্যায় পরেন। মেমোরিতে জায়গা না থাকায় ইচ্ছামত ছবি তুলতে পারেন না।

আবার অনেক সময় পুরনো বা অদরকারি ছবি ডিলেট করে তারপর ছবি তুলতে হয়, এতে খরচ হয় মূল্যবান সময়। তাই সাথে নিয়ে যান ব্যাকআপ স্টোরেজ হিসেবে ইউএসবি পেনড্রাইভ। তার সাথে অবশ্যই মোবাইলে কানেক্ট করার জন্য ওটিজি ক্যাবল নিতে ভুলবেন না। ওটিজি ছাড়া মোবাইলে পেনড্রাইভ কানেক্ট করা যাবে না।

http://www.techtunes.com.bd/

পেনড্রাইভ আর ওটিজি পাবেন যে কোন কম্পিউটারের দোকানে।

৬) Power Bank(পাওয়ার ব্যাংক)

ধরেন লোকালয় থেকে অনেক দূরে সুন্দর একটা জায়গায় গেলেন। ক্যামেরা, মোবাইল, পেনড্রাইভ সবই আছে কিন্তু হটাত করে চার্জ শেষ হয়ে গেল। যেহেতু লোকালয় থেকে দূরে আছে সেহেতু চার্জ দেয়ারও ব্যবস্থা নেই। একমুহুর্তেই মাটি হয়ে যেতে পারে আপনার ভ্রমণ। আর যদি ভ্রমণকে মাটি করতে না চান তাহলে সাথে রাখতে হবে পাওয়ার ব্যাংক। যেখান থেকে যে কোন ডিভাইস চার্জ দিতে পারবেন।

http://www.techtunes.com.bd/

এটিও পেয়ে যাবেন যে কোন কম্পিউটারের দোকানে।

৭) LIFESAVER Bottle(লাইফসেভার বোতল)

ভ্রমণে গেলে আমরা পানি নিয়েই যাই। কিন্তু সেটা শেষ হতেও সময় লাগে না। আগের মতই লোকালয় থেকে দূরে কোথাও গিয়ে যদি আপনার পানি শেষ হয়ে যায়? আর আপনার যদি চরম পর্যায়ের পানি পিপাসা লেগে থাকে? এখানে আপনাকে বাঁচাতে আসবে লাইফ সেভার বোতল। এই বোতল নিজেই পানি বিশুদ্ধ করতে পারে। ৯৯.৯৯% পর্যন্ত জীবাণুমুক্ত করতে পারে পানিকে।

http://www.techtunes.com.bd/

সাধারণ পানির বোতলের মতই হওয়ায় বহন করা একদম সহজ। এটিতে ৭৫০মিলি পানি রাখা সম্ভব এবং এই বোতল ৬০০০লিটারেরও বেশি পানি বিশুদ্ধ করতে পারে।

৮) Backpack Protector(ব্যাকপ্যাক প্রটেক্টর)

প্রটেক্টর নাম শুনেই নিশ্চয় বুঝতে পেরে গেছেন এটার কাজ কি। স্টেইনলেস স্টিলে তোইরী এই ধরনের প্রটেক্টরগুলি যে কোন ব্যাকপ্যাককে সম্পূর্ণ সুরক্ষা দিতে পারে।  এর মাধ্যমে আপনার ব্যাকপ্যাক থাকবে চুরি এবং ছিনতাই থেকে নিরাপদ এর সাথে আপনি ইচ্ছা করলে কোন ফিক্সড জিনিসের সাথে আপনার ব্যাকপ্যাকটি আটকে রাখতেও পারবেন।

http://www.techtunes.com.bd/

ব্যাগের দোকানে খোঁজ নিলেই পেয়ে যাবেন এই প্রটেক্টরগুলি।

৯) Portable Safe(পোর্টেবল সেফ)

পোর্টেবল লকের মত পোর্টেবল সেফ হল সহজে বহনযোগ্য একতি গেজেট। এর ভেতর আপনার গুরুত্বপুর্ণ জিনিসগুলি রাখতে পারবেন সম্পূর্ণ নিরাপদে। কম্বিনেশন লকের এই সেফ আপনি ছাড়া কেউই খুলতে পারবে না। তাছাড়া এটি সম্পূর্ণ ওয়াটার এবং ডাস্ট প্রুফ তাই আপনার সামগ্রী থাকবে সম্পূর্ণ নিরাপদ।

http://www.techtunes.com.bd/

খোঁজ নিলেই পেয়ে যাবেন ব্যাগের দোকানগুলোতে।

১০) Anti Theft Wallet(এন্টি থেফট ওয়ালেট)

চুরি ছিনতাই এখন বেড়েই চলেছে দিন দিন। ভ্রমণে গিয়ে ছিনতাইয়ের শিকার হলে সব নষ্ট। আর তাই ব্যবহার করতে হবে এন্টি থেফট ওয়ালেট। এধরণের ওয়ালেটের অনন্য ডিজাইনের কারণে এগুলো কাটা সম্ভব নয়, তাছাড়া অনেক ওয়ালেটে আছে এলার্ম সিস্টেম এবং জিপিএস সিস্টেম। তাই চুরি হবার বা ছিনতাই এর ভয় নেই। ভ্রমণ ছাড়াও প্রতিদিন এই ধরনের ওয়ালেট ব্যবহার করতে পারেন।

http://www.techtunes.com.bd/

ব্যাগের দোকানগুলোতেই পাবেন এই ধরনের ওয়ালেট। ভ্রমণ করবেন অবশ্যই, তবে তার আগে নিশ্চিত হয়ে নিবেন আপনার ভ্রমণের জন্য প্রয়োজনীয় সব কিছু ঠিকভাবে আছে কিনা। টিউনটি পড়ার জন্য ধন্যবাদ। কোথাও ঘুরতে গেলে আমাকে দাওয়াত দিয়েন টিউমেন্টে।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *